মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১৩ মার্চ ২০১৮

বিনাসরিষা-৯

জাতের নামঃ

 

বিনা সরিষা-৯

জাতের বৈশিষ্ট ঃ

 

  • প্রাথমিক শাখার সংখ্যা ৩-৪টি
  • জাতটি অল্টারনারিয়াজনিত পাতা ও ফলের ঝলসানো রোগ এবং বৃষ্টিজনিত সাময়িক জলাবদ্ধতা সহনশীল
  • বীজের আকার তুলনামূলকভাবে বড় এবং ১০০০ বীজের ওজন ২.৯-৩.৫ গ্রাম
  • বীজের রঙ লালচে কালো এবং বীজে তেলের পরিমাণ ৪৩%
  • জীবনকাল ৮০-৮৪ দিন

জমি ও মাটিঃ

 

সব ধরণের জমিতে চাষ করা যায় তবে দো-আঁশ হতে এটেল দো-আঁশ মাটিতে জাতটি ভাল জন্মে।

জমি তৈরিঃ

 

সরিষার বীজ ছোট বিধায় ভালোভাবে চাষ দিয়ে জমি তৈরি করতে হবে। ৪ থেকে ৫টি চাষ ও মই দিয়ে মাটি ঝুরঝুরে করে জমি তৈরি করতে হবে। জমিতে যাতে বড় বড় ঢিলা ও আগাছা না থাকে সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।

বপনের সময়ঃ

 

সাধারণত কার্তিক মাস (মধ্য অক্টোবর থেকে মধ্য নভেম্বর) এ জাতের সরিষা বপন করার উপযুক্ত সময়। তবে বিনাসরিষা-৪ মধ্য অগ্রহায়ণ (নভেম্বরের শেষ) পর্যন্ত বীজ বোনা যায়।

বীজের হারঃ

 

একর প্রতি ৩.০ কেজি বীজ ছিটিয়ে বা ২.৪ কেজি বীজ ৩০ সে.মি. দূরত্বে সারিতে বপন করতে হবে।

বীজ শোধনঃ

 

 

সার ও প্রয়োগ পদ্ধতিঃ

 

কৃষি পরিবেশ অঞ্চলভেদে সারের মাত্রা কম-বেশি হয়। তাই সাধারণভাবে একর প্রতি ৮০-১০০ কেজি ইউরিয়া, ৬০-৭০ কেজি টিএসপি, ৩০-৩৫ কেজি এমওপি, ৫০-৬০ কেজি জিপসাম, ২ কেজি জিংক সালফেট এবং ৪-৫ কেজি বোরাক্স সার প্রয়োগ যায়।  অর্ধেক পরিমাণ ইউরিয়া এবং অন্যান্য সারের সবটুকু জমি তৈরির শেষ চাষের সময় মাটির সাথে ভালোভাবে মিশিয়ে দিতে হবে। বাকী অর্ধেক ইউরিয়া বীজ বপনের ২০-২৫ দিন পর সেচসহ উপরি প্রয়োগ করতে হবে।

সেচ ও নিস্কাশনঃ

 

চারা গজানোর ২০-২৫ দিনের মধ্যে প্রথম সেচ এবং প্রয়োজনে ফুল ফোঁটা শেষ হলে দ্বিতীয় সেচ দিতে হবে। তবে জমিতে পর্যাপ্ত রস থাকলে সেচ দেয়ার প্রয়োজন নেই।

আগাছা দমন এবং মালচিংঃ

 

চারা গজানোর ১৫-২০ দিনের মধ্যে একবার নিড়ানি দিয়ে আগাছা এবং অতিরিক্ত চারা উঠিয়ে ফেলতে হবে।

বালাই ব্যবস্থাপনাঃ

 

পাতা ও ফলের ঝলসানো বা অলটারনারিয়া ব্লাইট রোগ এবং জাবপোকা সরিষা চাষের ক্ষেত্রে বড় সমস্যা। প্রতিকূল আবহাওয়ার কারণে অলটারনারিয়া ব্লাইট রোগের প্রকোপ বেড়ে গেলে প্রতি লিটার পানিতে ৩ গ্রাম রোভরাল-৫০ ডব্লিউপি বিকালে স্প্রে করতে হবে। ৭-১০ দিন পর পর ৩ বার স্প্রে করতে হবে। জাবপোকার আক্রমণ হলে ম্যালাথিয়ন-৫৭ ইসি প্রতি লিটার পানিতে ২ মি.লি. হিসাবে মিশিয়ে সম্পূর্ণ গাছ ভিজিয়ে স্প্রে করতে হবে। 

হেক্টরপ্রতি ফলনঃ

 

গড়ে ১.৬০ টন

 

 

 

প্রয়োজনে সংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞের সাথে কথা বলুন

তৈল ফসল বিশেষজ্ঞ

(সকাল ৯ টা-বিকাল ৫টা)

কল করুনঃ +8801712106620

ই-মেইলঃ malekbina@gmail.com

দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তার নাম ও পদবী

ড. মোঃ আব্দুল মালেক

মূখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা

উদ্ভিদ প্রজনন বিভাগ

বিনা, ময়মনসিংহ-2202


Share with :
Facebook Facebook